বাচতে চাই

পাখী হয়ে নিল আকাশে উড়তে চাই,
মেঘে ভেজা তুলোর মত ভাসতে চাই,
পাহাড়ের গায়ে আঘাত দিয়ে বাচতে চাই,
সহস্রশলিলা হয়ে নামতে চাই।

আমি যে ভালবাসতে চাই,
রামধনু হয়ে রঙ বিলোতে চাই,
ফুল হয়ে তোমার আচলে বসতে চাই,
কাজল হয়ে আঁখিপাতায় থাকতে চাই।

আমি যে নদী,বিলীন সমুদ্রে মেলার আগে,
দুইফোটা চোখের জল শুকিয়ে যাওয়া,
ভোরের পাখী ঘুম ভাংগার আগে,
শেষ শীষিরবিন্দু পাতা থেকে পড়া ।

Advertisements

a pair of high heel shoe

Loneliness, is like a high heel shoe,
a single misplaced high tempered brat,
sitting silently in a corner locker,
patiently waiting for a pick up.

Day and night, listening the same beat,
the day has gone when he used to shine,
with the loving and caring hand,
stromping on the road head held high.

The dearie has become prettier,
she needs something better,
a new model,a new trendy fashion,
the old has been offloaded to the bench.

Even now the pair is strong,
Sitting silently at the locker,
They look eagerly at the dearie,
will she put them on?

ভালোলাগা

ভালোলাগা আর ভালবাসার মাঝে
যোজনখানেক দূর,
বুঝিনি সেটা তখন আগে,
দুটিতে বাজে ভিন্ন ভিন্ন সুর।
কিছু সময় কথা বলা,
পাশাপাশি হাটাহাটি,
দুই ভিন্ন হৃদয়ের মেলামেশা,
জীবনের কুসুমকাননে কথাকলি।
শুরু হয় পালা দেয়ানেয়া,
একসাথে থাকার সাথে,
বুঝে নেওয়া দু:খ বেদনা,
হাসি কান্নার মাপকাঠিতে।
প্রথম সাথী নবীন মনের,
অলস গভীর গোপনে,
চলে পালা মান অভিমানের,
বোঝাপড়ার সাথে সাথে।
ভাললাগা তাই প্রথম পাঠ,
বর্নপরিচয়ের মতই সরল,
ভালমন্দের নাই বিচার,
মন তখন তরল নিরমল।
ধীরে ধীরে ঘুরে কালচক্র,
বাড়ি থেকে হয় বাসা,
আসে নতুন ফুলের কলি,
বাড়তে থাকে জীবনের আশা।
জ্ঞানকোষ পুর্ন করার জন্য,
ভুলে যাই একদিন আপনজন,
অধিকারবোধ হয়ে যায় গন্য,
মমরীচিকার পিছে ছুটে চলে মন।
তিল তিল করে গড়া সপ্ন,
যেন এক পাথরের প্রাসাদ,
আপনজন নীরবে করে যত্ন,
তলিয়ে যায় সেই আশা আহ্লাদ।
ভাল বাসায় ফাটল ধরে,
ফাটলে জন্মে আগাছা যত,
ভাললাগা রয় কিছুলেখা খামে,
প্রথম কিছুদিনের অলিখিত গল্প।
তাই আছে শুধু দুখ ভালবাসায়,
নাই কোন চাওয়া পাওয়া,
দুটি খালি বেঞ্চ পাড়ার দুই কোনায়,
থাকে দূরে আজীবন মিলনের প্রতিক্ষা।

সোদা গন্ধটা

কতদিন ধরে ভাবছি,
গন্ধটা পেয়েছি  কোথায়,
একটা অদ্ভুতধরনের সুবাস,
কোন এক ফুল ফোটা জোতস্নায়।

আমি খুজে বেড়াই,
বাস্তবে সপ্নে হেথায় হোথায়,
মিষ্টি সোদা গন্ধ ভেজা ফুল,
আছে কিন্তু লুকিয়ে বেড়ায়।

আনাচেকানাচে সোফার পাশে,
গন্ধটা যেন তোইরী আমার জন্য
মাঝেমধ্যে পাই যখন যাই কাছে,
কই আর কেউ পায় না কখনো।

সপ্ন কখনো হয় না কি সত্যি,
বুঝি কি করে গন্ধটা কিসে,
হঠাত করে পেলাম যখন নাকে,
ভেজা চুলটা যখন এল উড়ে পাশে।

এবার বলবে? গন্ধটা কিসের?
মাথার তেল,শাম্পু বা পারফিউম?
ভালবাসার দুই বিন্দু অশ্রু কি,
মুহুরত পরে যা হৃদয়ে থেকে যায়।

গন্ধটা মনের সৌন্দর্য,
কোথাও খুঁজে পাওয়া যায় না বাইরে,
থাকে শুধু নিজের মনের মণিকোঠায়।